Dhaka, Tuesday, 29 September 2020

বিলুপ্তপ্রায় বৈরালী মাছের কৃত্রিম প্রজননে সফল বাংলাদেশের মৎস্য বিজ্ঞানীরা

2020-08-22 16:06:12
বিলুপ্তপ্রায় বৈরালী মাছের কৃত্রিম প্রজননে সফল বাংলাদেশের মৎস্য বিজ্ঞানীরা

ওমর বিন আমিন, নীলফামারী প্রতিনিধি, সুখবর ডটকম: নীলফামারীতে মৎস্য বিজ্ঞানীরা বিলুপ্তপ্রায় বৈরালী মাছের কৃত্রিম প্রজননে সফল হয়েছেন। নদীর উন্মুক্ত পানির এই মাছটিকে আবদ্ধ পুকুরে চাষ করার পদ্ধতিও আবিষ্কার করেছেন তারা। মৎস্য বিজ্ঞানীদের এই আবিষ্কার দেশের পুষ্টি চাহিদা পূরণের পাশাপাশি চাষীদের অর্থনৈতিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করবে, দাবি তাদের।

বৈরালী, বরালী, বারালী বা কোসসা নামে পরিচিত মাছটি এক সময় প্রচুর পরিমাণে তিস্তা, ধরলা, ব্রহ্মপুত্র নদীতে পাওয়া যেত। এখন সহজে দেখা মেলে না বলে জানিয়েছেন তিস্তা পাড়ের জেলেরা।

সুন্দরখাতা গ্রামের ষাটোর্ধ্ব জেলে মঙ্গল মিয়া জানান, এক সময় দিনে ১২/১৩ কেজি বৈরালী ধরা পড়তো তার জালে, অথচ এখন সারাদিনে আধা কেজি মাছেরও দেখা মেলে না।

আন্তর্জাতিক পরিবেশ সংরক্ষণ বিষয়ক সংস্থা আইইউসিএন ২০১৫ সালে বৈরালী মাছটিকে বিলুপ্তপ্রায় হিসাবে ঘোষণা করে।

সুন্দরখাতার অপর এক জেলে জাহাঙ্গীর আলম বলেন, নদী শুকিয়ে যাওয়া আর নির্বিচার পোনা নিধনের কারণে বৈরালী মাছ হারিয়ে গেছে। তার দুঃখ, আগামী প্রজন্ম হয়তো এই মাছের আর দেখা পাবে না।

বিলুপ্তপ্রায় এই মাছগুলোকে ফেরাতে কাজ করছেন নীলফামারীতে অবস্থিত বাংলাদেশ মৎস্য গবেষণা ইনিস্টিটিউটের স্বাদু পানি উপকেন্দ্রের বিজ্ঞানীরা। উন্মুক্ত পানির এই মাছটিকে আবদ্ধ পুকুরে চাষ করার পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন তারা। নদীর মাছের চেয়ে আবদ্ধ পানির বৈরালীর আকারও বড় হচ্ছে বলে জানিয়েছেন, স্বাদু পানি উপকেন্দ্রের বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা শওকত আহম্মেদ। তিনি বলেন, নীলফামারীর বিভিন্ন নদী থেকে মাছ সংগ্রহের পর স্বাদু পানি উপকেন্দ্রের পুকুরে দুই বছর ধরে উন্মুক্ত পানির এই মাছটিকে আবদ্ধ পানিতে অভ্যস্ত করানো হয়েছে।

স্বাদু পানি উপকেন্দ্রের প্রধান ড. খন্দকার রশীদুল হাসান বলছেন, গবেষণা করে এই মাছের কৃত্রিম প্রজননে সফল হয়েছেন তারা। এই সফলতার উপকারভোগী হবেন সারা দেশের মৎস্য চাষীরা। এই মাছের পোনা কৃষক পর্যায়ে পৌঁছে দেয়ার দ্বারপ্রান্তে তারা। মানুষের দেহের প্রয়োজনীয় পুষ্টিগুণগুলো ব্যাপকভাবে এই মাছে থাকায় এর চাষ চাষীকে ও দেশকে অর্থনৈতিকভাবে লাভবান করেবে।

বাংলাদেশে ২৬০টি স্বাদু পানির মাছের মধ্যে ৬৪টি প্রজাতি বিলুপ্ত প্রায়। দেশের প্রাণীবৈচিত্র্য টিকিয়ে রাখার ক্ষেত্রে বিজ্ঞানীদের এসব আবিষ্কার আলো দেখাচ্ছে।





কৃষি ও প্রাণিসম্পদ সর্বশেষ খবর

কৃষি ও প্রাণিসম্পদ এর সকল খবর